অভিবাসী পরিবারগুলোকে বিচ্ছিন্ন নীতি থেকে সরে আসলেন ট্রাম্প

বৃহস্পতিবার, ২১ জুন, ২০১৮ ০২:৫৭:০৪ অপরাহ্ন
  •  
  •  
  •  
  •  

রিডার::যুক্তরাষ্ট্র

রিপাবলিকান, বিরোধী দল ডেমোক্রেটস তো আছেই পাশাপাশি আর্ন্তজাতিক সম্প্রদায়ের চাপে পড়ে নিজের সিদ্ধান্ত থেকে কিঞ্চিৎ সরে আসতে বাধ্য হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। বুধবার এক নির্বাহী আদেশে অবৈধ অভিবাসনের অভিযোগে আটক পরিবারের সদস্যদের এক সঙ্গে রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

সিএনএন বলছে, বৈধ কাগজপত্র ছাড়া যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করা বাবা-মায়ের কাছ থেকে সন্তানদের আলাদা রাখার নীতি নিয়ে গোটা আর্ন্তজাতিক মহলে কড়া সমালোচনার মুখে পড়ে ট্রাম্পের এ নির্বাহী আদেশ এলো।

তবে ইতিমধ্যে যে পরিবারগুলোকে বিচ্ছিন্ন করে আলাদাভাবে রাখা হয়েছে, আদেশে তাদের ভাগ্য নিয়ে কিছু বলা হয়নি।

 

 

মার্কিন অভিবাসন কর্মকর্তাদের বরাতে বলা হয়েছে, গত ৫ মে থেকে ৯ জুন অবদি ২২০৬ জন কারাবন্দী বাবা-মায়ের কাছ থেকে ২৩৪২ জন শিশুতে আলাদা করে আশ্রয়কেন্দ্রে রাখা হয়েছে।

চাপের মুখে অভিবাসন নীতিতে পরির্বতন আনলেও ট্রাম্প বলেছেন তার সরকার অবৈধ অভিবাসনের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি অব্যাহত রাখবে এবং সীমান্তে অবৈধ অনুপ্রবেশকারীদের বিচার চালিয়ে যাবে।

এসময় ট্রাম্প বলেছেন, তাঁর স্ত্রী মেলানিয়া এবং কন্যা ইভাঙ্কা অভিবাসী পরিবারগুলোকে বিচ্ছিন্ন করার নীতি পরিবর্তনের পক্ষে জোড়ালো অবস্থানে ছিলেন।

‘আমার, মনে হয় হৃদয়বান যে কেউ বিষয়টি অনুধাবন করতে পারবে।পরিবারগুলো পরস্পরের থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাচ্ছে এটা আর আমরা আর দেখতে চাই না।’

বেলা শেষে এইটুকু অনুধাবন যে হলো তাও কম কী!

 

 

সমালোচনা যেভাবে কুড়ালেন ট্রাম্প

যুক্তরাষ্ট্র আগে অবৈধ অনুপ্রবেশের অভিযোগে আটক হলে প্রথমবার তাদের আদালতের মুখোমুখি করে ছেড়ে দেওয়া হতো।

গত এপ্রিলে অ্যাটর্নি জেনারেলের কার্যালয়ে গত এপ্রিলে নতুন ‘জিরো টলারেন্সে’ নীতি প্রকাশ করে, যেখানে সীমান্তে অবৈধ অনুপ্রবেশকানীদের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা করার এবং কারাগারে পাঠানোর কথা বলা হয়।

কিন্তু শিশুদের যেহেতু কারাগারে রাখার নিয়ম নেই, তাই তাদের পৃথক আশ্রয়কেন্দ্রে রাখার কথা বলা হয়।

এরপর থেকে আশ্রয়কেন্দ্রে বেড়ার পাশে শিশুদের ঘুমিয়ে থাকার ছবি এবং তাদের কান্না অডিও প্রকাশ করা হলে পোপও ট্রাম্পের সিন্ধান্তে চটে যান, সমালোচনাও করেন।

নতুন এ নির্বাহী আদেশ কবে নাগাদ কার্যকর হবে, যে বিষয়ে এখনও পর্যন্ত ইঙ্গিত দেননি ট্রাম্প।

 

এই মুহুর্তে পড়া হচ্ছে

গুজবে কান দিয়ে রংপুরের যে যুবককে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে সেই শহিদুন্নবী জুয়েল আদতে ধর্মভিরু... আরও পড়ুন

আদতে ধর্মভিরু মুসলিম।

নভেম্বরের শুরুতেই নয়া প্রেসিডেন্ট পেতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ডাকযোগে আগাম ভোট শুরু হয়েছে চলতি মাসে। এরই... আরও পড়ুন

ডাকযোগে আগাম ভোট

হাজী সেলিমপুত্র ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের বহিস্কৃত কাউন্সিলর ইরফান সেলিম এবং তার দেহরক্ষী মোহাম্মদ... আরও পড়ুন

মোহাম্মদ জাহিদের তিন

টানা দশ ঘণ্টা রাশিয়ার রাজধানী মস্কোতে বসে আলোচনার পর আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের মধ্যে সাময়িক যুদ্ধবিরতির... আরও পড়ুন

যুদ্ধবিরতির বিষয়ে

হঠাৎ করে ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ায় সামাজিক মাধ্যমগুলোতে উদ্বিগ্ন আমজনতা। চলছে আন্দোলনও। দাবি উঠছে সর্বোচ্চ শাস্তি... আরও পড়ুন

ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ায়

প্রায় চার মাস বাদে পদ্মা সেতুর ৩২তম স্প্যান স্থাপনের মধ্য দিয়ে প্রায় ৫ কিলোমিটার দৃশ্যমান... আরও পড়ুন

উত্তর কোরিয়ার ক্ষমতাসীন ওয়ার্কাস পার্টির ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে একটি নতুন আন্তঃমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) উন্মোচন করেছে... আরও পড়ুন

ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) উন্মোচন

সৌদি আরবের দক্ষিণাঞ্চলে ইয়েমেনের হুতি বিদ্রোহীদের পাঠানো একটি বিস্ফোরক ভর্তি ড্রোন ধ্বংস করেছে সৌদি এয়ার... আরও পড়ুন

বিস্ফোরক ভর্তি ড্রোন ধ্বংস

করোনা আক্রান্ত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আসন্ন সাধারণ নির্বাচনের আগে দেশটির ঐতিহ্য অনুযায়ী নির্বাচনী বিতর্ক... আরও পড়ুন

নির্বাচনী বিতর্ক

পাঁচ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশুকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার রঙ্গশ্রী ইউনিয়নের... আরও পড়ুন

ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশু

  সাম্প্রতিক মন্তব্য

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।