সঞ্জুকে গ্লোরিফাই করার জন্য ‘সঞ্জু’ বানাই নি::রাজকুমার হিরানি

শনিবার, ৩০ জুন, ২০১৮ ০২:৪৩:৩৫ পূর্বাহ্ন
  •  
  •  
  •  
  •  

রিডার::অমিত সেন(মুম্বাই)

রাজকুমার হিরানি, ‘সঞ্জু’ সিনেমা নিয়ে বি-টাউন এখন মাতোয়ারা।অভিনেতা সঞ্জয় দত্তের জীবন নিয়ে রণবীর কাপুরের অভিনয়ে তৈরী হয়েছে এ সিনেমা।শুক্রবার মুক্তি পাওয়ার পর থেকে ভারত জুড়ে চলছে সিনেমাটি নিয়ে নানা আলোচনা।রিডারের সঙ্গে কথা বললেন ছবিটির পরিচালক রাজকুমার।

এই প্রথম কোন বায়োপিক বানালেন।‘সঞ্জু’ বানানো পেছনে বিশেষ কোন কারণ আছে কী ?

সঞ্জুর সঙ্গে আমি কাজ করেছি বহুবার।এতো কাছের মানুষটি যখন প্যারোলে ছাড়া পেয়েছিল জেল থেকে, আমি তাঁর সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলাম। জানি না কেন যেন ওই দিনটাতেই অনেক কিছু শেয়ার করেছিল সে।

বলতে পারেন প্রায় আট ঘণ্টা কাটিয়েছিলাম তাঁর বাড়িতে। পর দিন আবার ফোন করে ডেকে পাঠালো আমাকে। সে দিনও অনেকক্ষণ ছিলাম। ফিরে এসে মাথায় শুধু একটাই চিন্তা! সঞ্জুর সম্পর্কে আমরা যা জানি, তার সব মিডিয়াই আমাদের জানিয়েছে। কিন্তু গত দু’দিনে আমি যা জানলাম, সেগুলো তো কেউ জানে না!

সঞ্জু মনপ্রাণ খুলে সব স্বীকার করেছিল আমার কাছে। এক জন পরিচালক হিসেবে যা আমার মনকে সবচেয়ে বেশি নাড়া দিয়েছিল, সেটা হল বাবা-ছেলের সম্পর্ক। বাড়িতে কী রকম পরিবেশ ছিল, বাবা এবং বোনেদের সঙ্গে কী কথাবার্তা হতো— সব কিছু সঞ্জু আমাকে বলেছিল। সেই সময়ে আমি আর চিত্রনাট্যকার অভিজাত জোশী মিলে ‘মুন্নাভাই’ লিখছিলাম। কিন্তু তখন ‘সঞ্জু’র গল্পটা বলার লোভ জেগেছিল আমার মনে।

অভিজাতকে ডেকে তাই এই ছবিটার কাজ শুরু করলাম। আমি সঞ্জুকে নিয়েই বায়োপিক তৈরী করবো এ কথাটা কিন্তু অনেক দিন ধরেই বলে আসছি।কিন্তু আমি সিনেমা তৈরী করতে বরাবরের মতো সময় নিই।আমি সেটাই করেছি।

প্রথম দিকে সঞ্জয় দত্ত বায়োপিক বানাতে নারাজ ছিল, বলা হচ্ছে?পরে কী বলেই রাজি হলেন তিনি?

না তো। আমি প্রথম দিনই সঞ্জুকে বলে দিয়েছিলাম, তোমার গল্পকে গ্লোরিফাই করার জন্য আমি এই সিনেমা বানাব না। যে সততার সঙ্গে তুমি আমাকে তোমার গল্প শুনিয়েছ, আমি ঠিক সে ভাবেই ছবিটা বানাব। ৩০৮ জন গার্লফ্রেন্ড বা নিজের কাছে অস্ত্র রাখা বা মাদকাসক্তি নিয়ে ক’জন কথা বলতে পারে?

এটা সঞ্জুই পারে।

‘মুন্নাভাই’ সিনেমায় সুনিল দত্তের সঙ্গে কাজ করেছেন, অভিজ্ঞতাটা ভিন্ন ছিল?

প্রত্যেক মানুষের সঙ্গে কাজ করবার অভিজ্ঞতা ভিন্ন ভিন্ন।কিন্তু কিছু মানুষ আপনার মনে দাগ এমনভাবে কাটবে আপনি স্মৃতি থেকে তাদের বাদ দিয়ে নিজেকে ভাবতে পারবেন না।

সুনীল সাহেব জেন্টলম্যান। সেটে আসার আগে পুরো স্ক্রিপ্টটা উর্দুতে চেয়েছিলেন। কারণ তাঁদের সময়টায় উর্দুতে স্ক্রিপ্ট পড়া হতো। সেটে বরাবর সবার আগে পৌঁছতেন। এসে আমাকে জিজ্ঞাসা করতেন, ‘তোমার হিরো (সঞ্জয় দত্ত) কখন আসবে’? আর সঞ্জু সবসময় দেরি করেই সেটে আসতো!(হেসে ফেললেন)। কিন্তু দত্তসাব সব সময় উদগ্রীব হয়ে থাকতেন, কখন সঞ্জুর সঙ্গে সিকয়েন্স হবে।

মজার ব্যাপার হল, সঞ্জু কিন্তু খুব ভয় পেতেন বাবাকে। কিন্তু দু’জনের মধ্যে সীমাহীন ভালবাসা ছিল।

‘সঞ্জু’ রণবীর কাপুরকে কেন বাছাই করলেন?

প্রথম থেকে রণবীর আমার মাথায় ছিল। ২১ বছরের সঞ্জু ‘রকি’তে ডেবিউ করেছিল। সেই চেহারা আর ‘সাওয়ারিয়া’র রণবীর কপূরের চেহারার অনেক মিল। আমরা রণবীরকে ৩-৪ মাস সময় দিয়েছিলাম। ও প্রচণ্ড পরিশ্রম করেছিল। অনেক লুক টেস্ট হয়েছিল। কখনও পাশ, কখনও ফেল করেছে— কিন্তু হাল ছাড়েনি।

সঞ্জয় দত্ত যেহেতু এক জন বিখ্যাত অভিনেতা, তাই চেহারায় একটু হলেও মিল থাকা জরুরি ছিল। ভেবে রেখেছিলাম, চেহারা না মিললে ছবিটা করব না।এ প্রজেক্টটা আমার ড্রিম প্রজেক্ট।আমি কোন খামতি রাখিনি।

এখনকার রণবীর কাপুরকে নিয়ে আপনার কী ধারণা?

রণবীর অসাধারণ! পরিচালকদের কাছে ওর মতো অভিনেতা থাকা মানে রক সলিড সাপোর্ট। আমরা সকলেই এই ছবিটার পিছনে ৩ বছর দিয়েছি। এক বারের জন্যও রণবীর অভিযোগ করেনি। সকাল ৭টায় কল টাইম থাকলে ভোর ৩টায় এসে যেত। প্রস্টেটিক মেকআপ করতে ৩-৪ ঘণ্টা সময় লাগত বলে।

বলিউডের এমন কোন অভিনেতা খুঁজে পাবেন না যে কিনা আপনার সঙ্গে কাজ করতে চান না।এর পেছনে আপনার প্রথম কারিশমা কী?

(স্মিত হাসলেন) অতো শতো ভেবে বলতে পারবো না। এটুকু বলতে পারি আমার ছবি বানানোর পিছনে সবচেয়ে বড় কারণ চিত্রনাট্য। আমার স্ক্রিপ্ট নির্ণয় করে কাস্টিং, উল্টোটা নয়। আমি কিন্তু কম ছবি বানাই। কিন্তু বানালে সেটা যত্ন নিয়ে বানাই।যে কারও সিনেমা থেকে আমার পোস্ট প্রডাকশনে প্রচুর সময় ব্যয় হয়।গবেষণা চলে।আমি ভাই, ভালবেসে কাজটুকু করি।

এই মুহুর্তে পড়া হচ্ছে

গুজবে কান দিয়ে রংপুরের যে যুবককে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে সেই শহিদুন্নবী জুয়েল আদতে ধর্মভিরু... আরও পড়ুন

আদতে ধর্মভিরু মুসলিম।

নভেম্বরের শুরুতেই নয়া প্রেসিডেন্ট পেতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ডাকযোগে আগাম ভোট শুরু হয়েছে চলতি মাসে। এরই... আরও পড়ুন

ডাকযোগে আগাম ভোট

হাজী সেলিমপুত্র ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের বহিস্কৃত কাউন্সিলর ইরফান সেলিম এবং তার দেহরক্ষী মোহাম্মদ... আরও পড়ুন

মোহাম্মদ জাহিদের তিন

টানা দশ ঘণ্টা রাশিয়ার রাজধানী মস্কোতে বসে আলোচনার পর আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের মধ্যে সাময়িক যুদ্ধবিরতির... আরও পড়ুন

যুদ্ধবিরতির বিষয়ে

হঠাৎ করে ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ায় সামাজিক মাধ্যমগুলোতে উদ্বিগ্ন আমজনতা। চলছে আন্দোলনও। দাবি উঠছে সর্বোচ্চ শাস্তি... আরও পড়ুন

ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ায়

প্রায় চার মাস বাদে পদ্মা সেতুর ৩২তম স্প্যান স্থাপনের মধ্য দিয়ে প্রায় ৫ কিলোমিটার দৃশ্যমান... আরও পড়ুন

উত্তর কোরিয়ার ক্ষমতাসীন ওয়ার্কাস পার্টির ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে একটি নতুন আন্তঃমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) উন্মোচন করেছে... আরও পড়ুন

ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) উন্মোচন

সৌদি আরবের দক্ষিণাঞ্চলে ইয়েমেনের হুতি বিদ্রোহীদের পাঠানো একটি বিস্ফোরক ভর্তি ড্রোন ধ্বংস করেছে সৌদি এয়ার... আরও পড়ুন

বিস্ফোরক ভর্তি ড্রোন ধ্বংস

করোনা আক্রান্ত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আসন্ন সাধারণ নির্বাচনের আগে দেশটির ঐতিহ্য অনুযায়ী নির্বাচনী বিতর্ক... আরও পড়ুন

নির্বাচনী বিতর্ক

পাঁচ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশুকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার রঙ্গশ্রী ইউনিয়নের... আরও পড়ুন

ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশু

  সাম্প্রতিক মন্তব্য

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।