জয়ের বিরুদ্ধে ‘অশালীন’ তথ্য উপস্থাপনের অভিযোগ শেলী মান্নার

রিডার::ঢাকা

শুক্রবার, ১৪ আগস্ট, ২০২০ ০২:০৮:০৫ অপরাহ্ন
  •  
  •  
  •  
  •  
'অশালীন ও আপত্তিকর'

একটি টেলি অনুষ্ঠানে কেবিন ক্রুদের হেয় এবং উপস্থাপনার সময় শাহরিয়ার নাজিম জয়ের আচরণকে ‘অশালীন ও আপত্তিকর’ বলেও আখ্যা দিয়েছেন প্রয়াত নায়ক মান্নার স্ত্রী ও বিমানবালা শেলী মান্না।

ফেইসবুকে সম্প্রতি তিনি একটি পোস্ট দিয়েছেন। এতে শেলী মান্না অভিনেতা জয়কে জনসম্মুখে নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। অন্যথায় তিনি আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়ার পদক্ষেপ নেওয়া হুঁশিয়ারিও জানিয়েছেন।

শেলী মান্না তার পোস্টে লিখেন,

জনাব জয়,

সম্প্রতি একটি লাইভ অনুষ্ঠানে (জীবনের গল্প) অতিথি হয়ে এসেছিলেন বিমানের সাবেক ক্যাপ্টেন মোশতাক। আপনি সেই অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেছিলেন। আপনি এভিয়েশন নিয়ে অনেক প্রশ্ন করেছেন। একজন সজ্জন ব্যক্তিকে আমন্ত্রণ করে, তার জীবন বৃত্তান্ত, তার পেশাগত দক্ষতা ও কর্মময় জীবন সম্পর্কে আলোকপাত করেছেন স্বাভাবিক নিয়মেই।তারপর আপনি আপনার চিরাচরিত স্বভাবসিদ্ধ অভ্যাসের দরুন আবারো অপ্রাসঙ্গিক প্রসঙ্গ অর্থাৎ কেবির ক্রুদের সঙ্গে তাদের প্রণয়ঘটিত ব্যাপার থেকে শুরু করে, বিদেশ থেকে জিনিসপত্র এনে বিক্রি প্রসঙ্গেও উত্থাপন করেছেন, যা অত্যন্ত অশালীন ও আপত্তিকর..!

ক্যাপ্টেন মোশতাক অমায়িক ব্যক্তিত্ব বিধায় তিনি এটির উত্তরে একটি ব্যাখা দিয়েছেন। তার পরিপ্রেক্ষিতে আমি একটি কথাই বলতে চাই যে, “এ জগতে হায়, সেই বেশি চায় আছে যার ভুরিভুরি”।

 

কেবিন ক্রু সম্প্রদায় তাদের বৈধ আয় দিয়ে সচ্ছলভাবে জীবনযাপন করে এসেছে। কিছুটা টানপোড়ন তো পৃথিবীর সমস্ত সেক্টরেই চলমান রয়েছে। কোন সেক্টরই এর ঊর্ধে নয়। নইলে তো পৃথিবী জান্নাতময় হতো। ভালো শব্দের পাশাপাশি মন্দ বলে কোন শব্দ থাকতো না।

তিনি আরও লেখেন, আমার মনে হয়, এভিয়েশন সম্পর্কে আপনি কোন ধারণা পোষণ করেন না। নইলে এ ধরনের কোন অবান্তর প্রশ্ন করতে পারতেন না। কেবিন ক্রুদের একটা ভালো শিক্ষাগত যোগ্যতা থাকতে হয়। নইলে কঠিনতম ট্রেনিংগুলোতে তারা উত্তীর্ণ হতে পারতো না। সেমি টেকনিক্যাল বিষয়ে ট্রেনিংয়ে ৮৪ শতাংশ মার্ক নিয়ে তদের উতীর্ণ হতে হয়, পাশাপাশি অন্যান্য বিষয় নিয়ে প্রচুর পড়াশুনা করতে হয়।

সারা বছর পড়াশুনা, ট্রেনিং ও ব্রিফিংয়ের মধ্যে থাকতে হয়। পাশাপাশি ঈঅঅই এর নিয়মিত পরীক্ষা, বিদেশেও প্রতিনিয়ত এসব পরীক্ষার মধ্যে পড়তে হয়। লাইসেন্সের ন্যায় সার্টিফিকেটে প্রতিবছর প্রচুর পড়াশুনা করে ট্রেনিং এ উত্তীর্ণ হয়ে এর নবায়ন করতে হয়। না হলে কেউ ফ্লাইট অপারেট করতে পারবে না। অজানা বিষয়গুলো আপনার জ্ঞাত হবার জন্য পেশ করলাম।

এয়ারলাইন্স একটি টিম ওয়ার্ক, এখানে প্রত্যেকটি ডিপার্টমেন্ট, এমনকি ক্লিনার সেকশন ও সমভাবে প্রয়োজনীয় ও জরুরি, না হলে কোন ফ্লাইট উড্ডয়ন করতে পারবে না।

অ্যাভিয়েশন নিয়ম অনুযায়ী প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত কেবিন ক্রু ছাড়া কোন ফ্লাইট উড্ডয়ন করতে পারবে না। তাই এখানে সুপিরিয়র বলে কিছু নেই।

কেবিন ক্রুদের প্রথম উদ্দেশ্য হলো একজন যাত্রীকে সুরক্ষিতভাবে তার গন্তব্যে পৌঁছে দেয়া। পাশাপাশি সম্মানিত যাত্রীদের দায়িত্ব প্রশিক্ষিত এসব কেবিন ক্রুদের নির্দেশ মেনে নিরাপত্তার সাথে তাদের আকাশভ্রমণ ও গন্তব্যে পৌঁছানো।

তিনি আরও বলেন — আপনি এদেশের শিল্পী সমাজকেও চরমভাবে হেয় করেছেন। যারা এদেশের সংস্কৃতি জগতকে সমৃদ্ধ করে এ দেশকে প্রতিনিধিত্ব করেছেন তাদেরকেও আপনার অনুষ্ঠানে অশালীন প্রশ্নে জর্জরিত করেছেন। মৌসুমী, শাবনূর থেকে শুরু করে শিল্পী সমিতিকেও ন্যূনতম সম্মান দেখাননি।

অথচ আপনি একজন শিল্পী! ভাবতেও অবাক লাগে। আমরা অত্যন্ত রক্ষণশীল সমাজে বাস করি। তাই এই ব্যাপারে আপনার প্রচণ্ড সৌজন্যবোধ ও সীমারেখা থাকা উচিত ছিলো।

শেলী মান্না বলেন, কেবিন ক্রুদের প্রচণ্ড নিয়ম-নীতির মধ্যে চাকরি করতে হয়। প্রচণ্ড সীমাবদ্ধতা রয়েছে তাদের জীবন-যাপনে। আইনের বাইরে কাজ করার কোন বিধান এখানে নেই।

কেবিন ক্রুরা পেশাগত কারণে নিদ্রাহীনভাবে প্রতিনিয়ত ঝুঁকিপূর্ণ জীবন নিয়ে জাতীয় পতাকাবাহী এয়ারলাইন্সকে নিয়ে দেশের প্রতিনিধিত্ব করছেন, দেশের সেবা করছেন, তারা পারিবারিকভাবে প্রতিটি মুহূর্ত থেকে বঞ্চিত হচ্ছে, এমনকি প্রিয়জনের অসুস্থতা ও মৃত্যুর সময়ে পাশে থাকতে পারে না।

এমন একটা সম্মানজনক ও ঝুঁকিপূর্ণ পেশার সম্প্রদায়কে আপনি কোন যুক্তিতে ও সাহসে অবমাননা করলেন?

আপনার ধারনা থাকা উচিত যে মানুষের কথায়, প্রশ্নে, যুক্তিতে, আচার-ব্যবহারে চিন্তা ভাবনায় একটি শালীনতা ও সীমারেখা থাকা উচিত।

কোন অবস্থাতেই সীমালংঘনকারীকে প্রশ্রয় দেওয়া উচিত নয়।

এই মুহুর্তে পড়া হচ্ছে

গুজবে কান দিয়ে রংপুরের যে যুবককে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে সেই শহিদুন্নবী জুয়েল আদতে ধর্মভিরু... আরও পড়ুন

আদতে ধর্মভিরু মুসলিম।

নভেম্বরের শুরুতেই নয়া প্রেসিডেন্ট পেতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ডাকযোগে আগাম ভোট শুরু হয়েছে চলতি মাসে। এরই... আরও পড়ুন

ডাকযোগে আগাম ভোট

হাজী সেলিমপুত্র ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের বহিস্কৃত কাউন্সিলর ইরফান সেলিম এবং তার দেহরক্ষী মোহাম্মদ... আরও পড়ুন

মোহাম্মদ জাহিদের তিন

টানা দশ ঘণ্টা রাশিয়ার রাজধানী মস্কোতে বসে আলোচনার পর আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের মধ্যে সাময়িক যুদ্ধবিরতির... আরও পড়ুন

যুদ্ধবিরতির বিষয়ে

হঠাৎ করে ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ায় সামাজিক মাধ্যমগুলোতে উদ্বিগ্ন আমজনতা। চলছে আন্দোলনও। দাবি উঠছে সর্বোচ্চ শাস্তি... আরও পড়ুন

ধর্ষণ বেড়ে যাওয়ায়

প্রায় চার মাস বাদে পদ্মা সেতুর ৩২তম স্প্যান স্থাপনের মধ্য দিয়ে প্রায় ৫ কিলোমিটার দৃশ্যমান... আরও পড়ুন

উত্তর কোরিয়ার ক্ষমতাসীন ওয়ার্কাস পার্টির ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে একটি নতুন আন্তঃমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) উন্মোচন করেছে... আরও পড়ুন

ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএম) উন্মোচন

সৌদি আরবের দক্ষিণাঞ্চলে ইয়েমেনের হুতি বিদ্রোহীদের পাঠানো একটি বিস্ফোরক ভর্তি ড্রোন ধ্বংস করেছে সৌদি এয়ার... আরও পড়ুন

বিস্ফোরক ভর্তি ড্রোন ধ্বংস

করোনা আক্রান্ত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আসন্ন সাধারণ নির্বাচনের আগে দেশটির ঐতিহ্য অনুযায়ী নির্বাচনী বিতর্ক... আরও পড়ুন

নির্বাচনী বিতর্ক

পাঁচ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশুকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার রঙ্গশ্রী ইউনিয়নের... আরও পড়ুন

ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশু

  সাম্প্রতিক মন্তব্য

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।