জাতিসংঘে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞার প্রস্তাব দিয়ে পার পাবে না যুক্তরাষ্ট্র:রুহানি

রিডার::ইরান

বুধবার, ১২ আগস্ট, ২০২০ ০৭:১১:০৮ অপরাহ্ন
  •  
  •  
  •  
  •  
ওয়াশিংটন করে যাচ্ছে তা

জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের মাধ্যমে তেহেরানের বিরুদ্ধে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়ানোর যে চেষ্টা করছে ওয়াশিংটন করে যাচ্ছে তা আদতে কার্যকর হবে না। এবং নিরাপত্তা পরিষদের ভোটাভুটিতে যুক্তরাষ্ট্রের পরাজয় নিশ্চিত বলে মন্তব্য করেছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট ড. হাসান রুহানি।

হাসান রুহানি প্রতিবেশী দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, ওয়াশিংটনের এজেন্ডা বাস্তবায়নের জন্য তারা যেন সহযোগী না হয়।

আজ বুধবার ইরানের মন্ত্রিপরিষদের বৈঠকে দেয়া বক্তৃতায় প্রেসিডেন্ট রুহানি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদকে ব্যবহার করে আমেরিকা ইরানের বিরুদ্ধে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়ানোর জন্য যে তৎপরতা চালাচ্ছে তা জাতিসংঘের ২২৩১ নম্বর প্রস্তাবের লংঘন। এই প্রস্তাবের মাধ্যমে ইরান ও ছয় জাতিগোষ্ঠীর মধ্যে সই হওয়া পরমাণু সমঝোতাকে অনুমোদন দেয় জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ।

প্রস্তাবের গুরুত্বপূর্ণ একটি ধারা ছিল এই যে, ইরান যদি পরমাণু সমঝোতা পুরোপুরি বাস্তবায়ন করে তাহলে সমঝোতা সই হওয়ার পাঁচ বছর পর তেহরানের ওপর থেকে জাতিসংঘের অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা উঠে যাবে।

প্রেসিডেন্ট রুহানি বলেন — আমাদের উচ্চ পর্যায়ের আশা রয়েছে- জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের ভোটাভুটিতে আমেরিকা পরাজিত হবে এবং সে নিজেকে একঘরে দেখবে। তবে যদি এ ধরনের প্রস্তাব পাস হয় তা হবে জাতিসংঘের ২২৩১ নম্বর প্রস্তাবের অংশবিশেষের লঙ্ঘন।

প্রেসিডেন্ট রুহানি বলেন, অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা মেয়াদ বাড়ানোর ব্যাপারে আমেরিকা এ পর্যন্ত বিশ্বজনমত নিজের দিকে টানতে সক্ষম হয় নি। তারা রাজনৈতিকভাবে পরাজিত হয়েছে এবং তারা আবারও ব্যর্থ হবে। অন্যদিকে বিশ্ববাসী পরিষ্কার হয়েছে যে, ইরান একটি আইন মেনে চলা নীতি-নৈতিকতা সম্পন্ন দেশ।

এই মুহুর্তে পড়া হচ্ছে

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আসন্ন সাধারণ নির্বাচন নিয়ে রিপাবলিকান ও ডেমোক্রেটদের মধ্যে প্রচারনা চলছে। একে অপরকে যুক্তি... আরও পড়ুন

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আসন্ন সাধারণ নির্বাচন নিয়ে

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিপি নুরুল হক নূরসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়েরই এক ছাত্রী।... আরও পড়ুন

সাবেক ভিপি নুরুল হক

যুক্তরাষ্ট্র যে নিজের খেয়াল খুশি মতো অন্য দেশগুলোর উপর নিজেদের আকাঙ্খা চাপিয়ে দেওয়ার নামে ‘নিষেধাজ্ঞা’... আরও পড়ুন

‘নিষেধাজ্ঞা’ নিয়ম জারি

লেবাননের রাজধানী বৈরুতে জোড়া বিস্ফোরণে জন্য প্রথম থেকে ফ্রান্সের দিকে আঙ্গুল তুলছিল যুক্তরাষ্ট্র। বলা হচ্ছিল,... আরও পড়ুন

ফ্রান্সের দিকে আঙ্গুল

নাটকের নাম ‘বাবু খাইছো?’ আর এক নাটকে ইউটিউব দেশের ট্রেন্ডিং লিস্টে সেরার জায়গা করে নিয়েছে।... আরও পড়ুন

‘বাবু খাইছো’

ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন নীতিতে সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুলাহ আজিজ আল সৌদ এবং তাঁর... আরও পড়ুন

ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন নীতিতে সৌদি

চীনাদের গুপ্তচরবৃত্তিতে জড়িত থাকার অভিযোগে ভারতের রাজধানী দিল্লীর এক স্থানীয় সাংবাদিককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত... আরও পড়ুন

চীনাদের গুপ্তচরবৃত্তিতে জড়িত থাকার অভিযোগে

ভারতের মুম্বাই শহরে ভিবান্ডি এলাকায় তিনতলা ভবন ধসে পড়ে অন্তত শিশুসহ দশজন নিহত হয়েছেন। ভবনটিতে... আরও পড়ুন

ভিবান্ডি এলাকায় তিনতলা

স্ত্রীর গর্ভে ছেলে না মেয়ে সন্তান তা নিশ্চিত হতে সাত মাসের অন্ত্বঃসত্তা স্ত্রীর পেট কেটে... আরও পড়ুন

স্ত্রীর গর্ভে ছেলে না মেয়ে সন্তান

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও) ওয়াহিদা খানম ও তার বাবাকে হত্যার চেষ্টা ঘটনায় গ্রেপ্তার রবিউল... আরও পড়ুন

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটের উপজেলা নির্বাহী

  সাম্প্রতিক মন্তব্য

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Recommended for you

সবচেয়ে বড় শত্রুতার

ইরানের সবচেয়ে বেশি ক্ষতি করেছেন ট্রাম্প:রুহানি

ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেছেন, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ইরানি জনগণের সঙ্গে সবচেয়ে বড় শত্রুতার পরিচয় দিয়েছেন। তিনিই তেহরানের সবচেয়ে বেশি ক্ষতি করেছেন। গতকাল রবিবার ইরানের মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে এ... আরও পড়ুন

আলোচনার ঘরে যাবে

যুক্তরাষ্ট্র ক্ষমা চাইলে, আলোচনায় যাবে ইরান

পরমাণু চুক্তি থেকে বেরিয়ে যাওয়ার ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার সঙ্গে আনুষ্ঠানিকভাবে ক্ষমা চাইতে হবে, তাহলেই আলোচনার ঘরে যাবে ইরান।আজ বুধবার এমন মন্তব্য করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি। রয়র্টাস বলছে, আজ... আরও পড়ুন

এই বাণিজ্যে বাধা দেয়ার

ইরানের বাণিজ্য নীতিতে বাধা দেওয়া অধিকার যুক্তরাষ্ট্রকে কে দিয়েছে?

ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেছেন, পৃথিবীর যেকোনো দেশের সঙ্গে স্বাধীনভাবে ব্যবসা-বাণিজ্য করার অধিকার রাখে ইরান। আর এই বাণিজ্যে বাধা দেয়ার অধিকার কারোরই নেই যুক্তরাষ্ট্রেরও নেই।আর কতো দিন তারা দাদাগিরি করবে?... আরও পড়ুন