কেনোশায় সেনাদের না পাঠালে পরিস্থিতি ভয়ানক হতে পারতো:ট্রাম্প

রিডার::যুক্তরাষ্ট্র

মঙ্গলবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০২:০১:৩৪ অপরাহ্ন
  •  
  •  
  •  
  •  
কেনোশা সফরে গিয়ে

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের কেনোশা শহর সফর যাওয়ার সিদ্ধান্তে অটল রয়েছেন। তিনি বলেছেন, আজ মঙ্গলবার কেনোশা সফরে গিয়ে ফেডারেল কর্মকর্তাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।

উইসকনসিন অঙ্গরাজ্যের কর্মকর্তাদের সতর্কবার্তা উপেক্ষা করে তিনি এই সফরে যাচ্ছেন।

গেলো সপ্তাহে ‘ব্ল্যাক লাইভস ম্যাটার’ বিক্ষোভে অংশগ্রহণকারীদের ওপর নির্বিচারে গুলি চালান ১৭ বছর বয়সী কিশোর কাইলে রিটেনহাউস।  ট্রাম্প তখন সেই খুনির পক্ষ নিয়ে বললেন, ওই কিশোর আত্মরক্ষার্থে এটা করেছে।তাকে দোষ দেই কী করে?

সেমি অটোমেটিক রাইফেল দিয়ে গত সপ্তাহে কেনোশায় বিক্ষোভকারীদের ওপর গুলি চালান ইলিনয়সের ওই বাসিন্দা। এক ভিডিওতে দেখা যায়, বিক্ষোভকারীরা তাকে ধাওয়া করছেন, সে সময় তিনি বিক্ষোভকারীদের লক্ষ্য করে গুলি চালাতে থাকেন।

তার বিরুদ্ধে ইচ্ছাকৃত হত্যা, বেপরোয়াভাবে হত্যা, ইচ্ছাকৃতভাবে হত্যাচেষ্টা এবং বেপরোয়া কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগ উঠেছে। যদিও ওই কিশোরের দাবি — এসব তিনি করেছেন আত্মরক্ষার জন্য।

রিটেনহাউসের দাবি, গাড়ি থেকে জিনিসপত্র চুরি করার পর প্লাস্টিকের একটি ব্যাগ আমার দিকে নিক্ষেপ করার কারণে জোসেফ রোসেনবামকে হত্যা করেছি। আর তিনি আমার অস্ত্র কেড়ে নেওয়ার চেষ্টা করেছিলেন।

এ ঘটনার আগেও তিনি মার্কিন পুলিশকে সমর্থন জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে পোস্ট দিয়েছেন। এমনকি অস্ত্র নিয়ে ছবি তোলা এবং অস্ত্র প্রদর্শন করতেও দেখা গেছে তাকে।

সোমবার ট্রাম্প তাঁর এক টুইটার বার্তায় লিখেছেন, তিনি যদি কেনোশা শহরে ন্যাশনাল গার্ডের সেনাদের পাঠানোর ব্যবস্থা না করতেন তাহলে এখন এই শহরের অস্তিত্ব থাকত না এবং বহু লোক হতাহত হতো।

উইসকনসিনের স্থানীয় কর্মকর্তারা বহুবার ওই অঙ্গরাজ্যের কেনোশা শহরে ট্রাম্পের সফরের বিরোধিতা করেছেন।গত সপ্তাহে মার্কিন পুলিশ ওই শহরে নিজ সন্তানদের সামনে জ্যাকব ব্লেইক নামের একজন কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তিকে গুলি করে হত্যা করে।

এ ঘটনার জের ধরে সেখানে বর্ণবাদবিরোধী ব্যাপক বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। এছাড়া, গত কয়েক সপ্তাহ ধরে যুক্তরাষ্ট্রের বহু শহরে বর্ণবাদ বিরোধী বিক্ষোভ চলছে।

এদিকে ট্রাম্প বলেছেন, ডেমোক্র্যাটদের নিয়ন্ত্রণে থাকা শহরগুলোতে এসব সহিংসতা রাজনৈতিকভাবে করানো হচ্ছে। ডেমোক্র্যাট নেতাদের দুর্বল নেতৃত্বের কারণে এসব ঘটনা ঘটছে। বাইডেনের আমেরিকায় কেউ নিরাপদ নয়।

এই মুহুর্তে পড়া হচ্ছে

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আসন্ন সাধারণ নির্বাচন নিয়ে রিপাবলিকান ও ডেমোক্রেটদের মধ্যে প্রচারনা চলছে। একে অপরকে যুক্তি... আরও পড়ুন

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আসন্ন সাধারণ নির্বাচন নিয়ে

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিপি নুরুল হক নূরসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়েরই এক ছাত্রী।... আরও পড়ুন

সাবেক ভিপি নুরুল হক

যুক্তরাষ্ট্র যে নিজের খেয়াল খুশি মতো অন্য দেশগুলোর উপর নিজেদের আকাঙ্খা চাপিয়ে দেওয়ার নামে ‘নিষেধাজ্ঞা’... আরও পড়ুন

‘নিষেধাজ্ঞা’ নিয়ম জারি

লেবাননের রাজধানী বৈরুতে জোড়া বিস্ফোরণে জন্য প্রথম থেকে ফ্রান্সের দিকে আঙ্গুল তুলছিল যুক্তরাষ্ট্র। বলা হচ্ছিল,... আরও পড়ুন

ফ্রান্সের দিকে আঙ্গুল

নাটকের নাম ‘বাবু খাইছো?’ আর এক নাটকে ইউটিউব দেশের ট্রেন্ডিং লিস্টে সেরার জায়গা করে নিয়েছে।... আরও পড়ুন

‘বাবু খাইছো’

ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন নীতিতে সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুলাহ আজিজ আল সৌদ এবং তাঁর... আরও পড়ুন

ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন নীতিতে সৌদি

চীনাদের গুপ্তচরবৃত্তিতে জড়িত থাকার অভিযোগে ভারতের রাজধানী দিল্লীর এক স্থানীয় সাংবাদিককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গত... আরও পড়ুন

চীনাদের গুপ্তচরবৃত্তিতে জড়িত থাকার অভিযোগে

ভারতের মুম্বাই শহরে ভিবান্ডি এলাকায় তিনতলা ভবন ধসে পড়ে অন্তত শিশুসহ দশজন নিহত হয়েছেন। ভবনটিতে... আরও পড়ুন

ভিবান্ডি এলাকায় তিনতলা

স্ত্রীর গর্ভে ছেলে না মেয়ে সন্তান তা নিশ্চিত হতে সাত মাসের অন্ত্বঃসত্তা স্ত্রীর পেট কেটে... আরও পড়ুন

স্ত্রীর গর্ভে ছেলে না মেয়ে সন্তান

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও) ওয়াহিদা খানম ও তার বাবাকে হত্যার চেষ্টা ঘটনায় গ্রেপ্তার রবিউল... আরও পড়ুন

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটের উপজেলা নির্বাহী

  সাম্প্রতিক মন্তব্য

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।